ইসলাম বনাম কাদিয়ানি ধর্ম

ডা. হাফেয ফেদাউর রহমান ।। [পাকিস্তানের পাঞ্জাবে কাদিয়ানীদের মূল কেন্দ্র চনাবনগর ‘ফযল ওমর হাসপাতাল’-এর ডাক্তার হাফেয ফেদাউর রহমান ২৯ মে ১৯৮২ ঈসাব্দে নিজ পরিবারের সাতজন সদস্যসহ মজলিসে তাহাফফুযে খতমে নবুওত চনাবনগর মারকাযে এসে ইসলাম গ্রহণ করেন। তিনি ডেরা গাযী খানের অন্তর্গত রান্দান কোট চটের বাসিন্দা। ভাওয়ালপুর কায়েদে আযম মেডিকেল কলেজবিস্তারিত

রানা মুহাম্মাদ রফিক খান ।। [৪ঠা জুন ২০০৪ তারিখে পাকিস্তানের ফয়সালাবাদ রেলওয়ে কলোনি কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে জুমার নামাযে উপস্থিত মুসল্লিদের মজমায় খ্যাতিমান আলেমে দীন, জনাব মাওলানা তারেক মাহমুদের হাতে ইসলাম গ্রহণ করেন কাদিয়ানি ধর্মমত থেকে তওবাকারী রানা মুহাম্মাদ রফিক খান। তার ইসলাম গ্রহণের বৃত্তান্ত ও কাদিয়ানি ধর্মমতের বিভিন্ন দিক সম্পর্কিতবিস্তারিত

মাওলানা মুহাম্মাদ ইদরীস কান্ধলাভী ।। কাদিয়ানি সম্প্রদায়ের ব্যাপারে অনেকেই এ ভুল ধারণার শিকার যে, ‘তারাও ইসলামেরই (?) একটি দল। শুধু শাখাগত কিছু ছোট-খাটো মাসআলায় তাদের সঙ্গে সামান্য বিরোধ আছে। যেরূপ আরো বিভিন্ন ইসলামী ফেরকা ও মুসলমানদের জামাতের ভেতর দেখা যায়।’ এজন্যেই এ মনোভাব পোষণকারীরা কাদিয়ানিদেরকে ‘মুরতাদ, ইসলাম থেকে খারিজ এবংবিস্তারিত

আবদুল্লাহিল বাকি ।। আল্লামা ইকবাল কাদিয়ানি ফেতনার ভয়াবহতা ও তাদের সম্পর্কে সাধারণ মুসলমানদের সতর্ক করতে বেশ কিছু প্রবন্ধ লিখেছেন। রাষ্ট্রীয় পর্যায়েও তিনি এ বিষয়ে সতর্ক করার চেষ্টা করেছেন। তাছাড়া বিভিন্ন সময়ে তিনি তাদের বিষয়ে বক্তব্য রেখেছেন। বক্তব্যগুলো লতিফ আহমাদ শেরওয়ানী ‘হরফে ইকবাল’ নামে একটি গ্রন্থে সংকলিত করেছেন। এখানে ইকবালের কিছুবিস্তারিত

মাওলানা মুহাম্মাদ মনযূর নোমানী ।। ইসলাম বিশেষ কোনো জাতি বা জ্ঞাতি-গোষ্ঠীর নাম নয়। হিন্দু ধর্মের মতো (যদি তাকে ‘ধর্ম’ বলা চলে) শুধু কিছু সামাজিক আচার-অনুষ্ঠান অথবা বিশেষ কোনো উপাসনারীতির নামও নয় ইসলাম। হিন্দুদের ধর্মজগত সম্পর্কে যাদের কিছু অবগতি আছে, তারা জানেন, এ ধর্মে আকিদা-বিশ্বাসের তেমন কোনো গুরুত্ব নেই। যারা  বেদ-উপনিষদ ইত্যাদিকে ঐশী গ্রন্থবিস্তারিত